Sports Bangla

রোমাঞ্চের এক সিরিজ জয়

রোমাঞ্চের এক সিরিজ জয়

রোমাঞ্চের এক সিরিজ জয়
জুন ২১
০৬:৫৭ ২০১৫

Explore1রোমাঞ্চের এক সিরিজ শেষ হলো। যেখানে ডার্কওয়াথ লুইস পদ্ধতিতে ৩ উইকেটে জিতে শেষ হাসি হেসেছে ইংল্যান্ড। ফলে পাঁচ ম্যাচের ওয়ান সিরিজের নিষ্পত্তি হয়েছে ৩-২ ব্যবধানে। আগের চারবারের দেখায় ইংল্যান্ড-নিউজিল্যান্ড দু’দলই দুটি করে ম্যাচ জেতায় সিরিজে ছিল সমতা। তাই ডারহামের চেষ্টার-লি স্ট্রিটে পঞ্চম ওয়ানডেটি রুপ পেয়েছিল ফাইনালের।

আর এখানে জস বাটলারের জায়গায় সুযোগ পেয়ে নায়ক বনে গেলেন তরুণ উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান জনি ব্যারিস্ট। প্রথমে ব্যাট করতে নেমে নিউজিল্যান্ড ২৮৩ রানের বিশাল লক্ষ্য বেধে দিলেও, বৃষ্টি বিঘ্নিত ম্যাচটিতে শেষ পর্যন্ত ইংল্যান্ডের জয়ের জন্য বেধে দেওয়া হয় ২৬ ওভারে ১৯২ রান।

কিন্তু ৪৫ রানের মধ্যেই টপ অর্ডারের ৫ উইকেট হারিয়ে খেই হারিয়ে ফেলে ইয়ন মরগ্যানের দল। সান্টনারের বোলিং তোপে একে একে ফিরে যান জ্যাসন রয় (১২), অ্যালেক্স হেলস (১), জো রুট (৪), মরগ্যান (০) এবং বেন স্টোকস (১৭)। ম্যাচের গতিপ্রকৃতি তখন অনেকটাই নিউজিল্যান্ডের দিকে হেলে পড়ে।

ambiagroupএ সময় হঠাৎই কিউইদের সামনে ব্যাট হাতে হিমালয়ের মত অবিচল দাঁড়িয়ে যান ব্যারিস্ট। তিনি ম্যাচটি একাই ম্যাচটি বের করে নিয়ে গেলেন ৬০ বলে অপরাজিত ৮৩ রানের ইনিংস খেলে। এ ইনিংসটি তিনি সাজান ১১টি চারের সাহায্যে। ব্যারিস্টকে সঙ্গ দিয়েছেন স্যাম বিলিংস (৪১)। সান্টনার ৩১ রানে ৩টি, বেন হুইলার ৩৩ রানে পেয়েছে ২টি উইকেট।

এর আগে বৃষ্টি ভেজা মাঠে টস জিতে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয় ইংল্যান্ড। শুরুতেই অধিনায়ক ব্রেন্ডন ম্যাককালামকে (৪) হারালেও দুর্দান্ত ফর্মে থাকা মার্টিন গাপটিল (৬৭), কেন উইলিয়ামসন (৫০), রস টেলরের (৪৭) স্যৌজন্যে ২৮৩ রানের পুজি পায় নিউজিল্যান্ড। বৃষ্টিভেজা মাঠে জয়ের জন্য এই রান যথেষ্টই ছিল।

কিউইদের শুরুটাও ছিল দাপুটে। এক ব্যারিস্টই তাদের কাছ থেকে ম্যাচটা ছিনিয়ে গেছে। একই সঙ্গে ওয়ানডেতে নতুন যাত্রাও কী শুরু করলো ইংলিশরা? বিশ্বকাপের গ্রুপ পর্বে বাংলাদেশের কাছে লজ্জাজনক পরাজয়ে কোয়ার্টার ফাইনালে উঠতে ব্যর্থ ইংল্যান্ড ওয়ানডেতে রক্ষণাত্মক খেলছে বলে চারদিকে সমালোচনা শুরু হয়েছিল। সেই দলটিই এখন আগ্রাসী ভূমিকায়।

প্রথম ওয়ানডেতে ৪০০ এর উপরে রান তুলেছে। পরের তিনটি ম্যাচেও তারা রানের ফল্গুধারা ছুটিয়েছে। শেষ ম্যাচটি বাধে আগের চারটিতেই তিনশ’র ওপর রান উঠেছে। একটিতে তো ৩৪৯ রান তাড়া করে জিতেছে ইংলিশরা। আরেকটিতে ৩৯৮ রানের পরিবর্তে জয়ের জন্য ৩৭৯ রান লক্ষ্য বেধে দেওয়া হলে ইংলিশরা চলে গিয়েছিল ৩৬৫ রান পর্যন্ত। বোঝাই যাচ্ছে, মরগ্যানের এই দল আর খোলসে বন্দি থাকতে রাজি নয়!

Kwality

লেখক সম্পর্কে

স্পোর্টসবাংলা ডেস্ক

স্পোর্টসবাংলা ডেস্ক

এই ধরনের আরো লেখা

০ মন্তব্য

এখনো কোনো মন্তব্য আসেনি!

এই মুহূর্তে এখানে কোনো মন্তব্য নেই, আপনি কি একটি মন্তব্য দেবেন?

মন্তব্য লিখুন

মন্তব্য লিখুন

আর্কাইভ

সেপ্টেম্বর ২০২০
সোমমঙ্গলবুধবৃহস্পতিশুক্রশনিরবি
« আগস্ট  
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০