Sports Bangla

বার্সার নব আনন্দের সংবাদ

বার্সার নব আনন্দের সংবাদ

বার্সার নব আনন্দের সংবাদ
জুন ০৯
১৩:৫৩ ২০১৫

Kwality (1)এবার বুঝি বার্সেলোনার শিরোপাময় আনন্দের ষোলকলা পূর্ণ হলো; স্প্যানিশ লিগ, কোপা দেল রে এবং উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগ ফুটবলের শিরোপা জিতে কি দুর্দান্ত একটি মৌসুমই না শেষ করেছে স্প্যানিশ ক্লাবটি। তবে এমন আনন্দের মাঝে খানিকটা বিষাদ ছড়াচ্ছিল কোচ লুই এনরিক আর রক্ষণভাগের ব্রাজিলিয়ান তারকা দানি আলভেসের ক্লাব ছেড়ে যাওয়ার বিষয়টি। কিন্তু শেষ অব্দি দুজনই বিদায় না নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। বার্সেলোনাতেই থেকে যাচ্ছেন তারা। যা বার্সার জন্য নব আনন্দের সংবাদ।

কোচ হিসেবে নিজের অভিষেক মৌসুমেই দলকে ট্রেবল জিতিয়ে বার্সার হিরোতে পরিণত হয়েছে এনরিক। এমন গুণী ব্যক্তিকে কে ছাড়তে চায়? বার্সা সভাপতি জোসেপ বার্তেমিউও চান না। তাই তো এনরিককে কোচ হিসেবে বার্সেলোনাতেই থেকে যাওয়ার বিষয়ে রাজি করিয়ে ফেলেছেন তিনি।

এদিকে, নতুন চুক্তির বিষয়ে বার্সা কর্তৃপক্ষের সঙ্গে একমত হতে পারছিলেন না আলভেস। তাই তো স্পেনের ক্লাবটি ছেড়ে যাওয়ার সিদ্ধান্তই পাকা করে ফেলেছিলেন তিনি। কিন্তু দীর্ঘদিন ধরেই মাঠের সাফল্যে বার্সার উজ্জ্বল তারকাদের একজন এই ব্রাজিলিয়ান ফুটবলার। তাকে হারানো বার্সার জন্য ক্ষতির কারণই হয়ে দাঁড়াতে পারে ভবিষ্যতে। শেষ অব্দি তাই আলভেসকে দলে রেখে দিতে যা করণীয় তা করেছে বার্সা কর্তৃপক্ষ। নতুন করে তাদের প্রস্তাবিত চুক্তিতে সায় দিয়েছেন আলভেসও। আগামী ২ বছর বার্সেলোনাতেই থাকছেন তিনি। মঙ্গলবার এ সংক্রান্ত চুক্তিও স্বাক্ষরিত হয়েছে দুই পক্ষের মধ্যে।

ambiagroupএ বিষয়ে বার্সার অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে বলা হয়েছে, ‘বার্সার চুক্তিতে সম্মতি দিয়েছেন দানি আলভেস। নতুন চুক্তি অনুযায়ী ২০১৭ সালের ৩০ জুন পর্যন্ত এই ক্লাবেই থাকছেন তিনি। তবে ইচ্ছে করলে এরপরও আরও এক বছর বার্সার হয়ে খেলতে পারবেন আলভেস।’

উল্লেখ্য, সদ্য সমাপ্ত মৌসুমে বার্সার ট্রেবল জয়ে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখা দানি আলভেস এখন অব্দি বার্সার হয়ে ৫টি লিগ শিরোপা পাশাপাশি উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ৩টি শিরোপাও জিতেছেন। ২০০৮ সালে ৩৫ মিলিয়ন ইউরোর বিনিময়ে স্প্যানিশ ক্লাব সেভিয়া থেকে বার্সেলোনায় যোগ দিয়েছিলেন তিনি।

সম্প্রতি আলভেসের এসি মিলান, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড অথবা পিএসজিতে যাওয়া নিয়ে জোর গুঞ্জন চলছিল। এরই মধ্যে আবার সেভিয়া থেকে আলেক্সি ভিদালকে দলে টানে বার্সেলোনা। ২০০১-০২ মৌসুমে বার্সেলোনার অনূর্ধ্ব-১৪ বি দলে খেলা ভিদাল পরে অনেকগুলো ক্লাবে খেলে সবশেষ গত বছর সেভিয়াতে যোগ দেন। আর প্রথম মৌসুমেই স্প্যানিশ দলটিকে ইউরোপা লিগ জেতাতে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখে ইউরোপ সেরা বার্সেলোনার নজরে পড়েন এই খেলোয়াড়।

বার্সেলোনায় যোগ দেওয়ার দিনটিকে বিশেষ উল্লেখ করে ভিদাল বলেন, “আমার মেয়ের জন্মের দিনটি বাদ দিয়ে, এটা আমার জীবনের সবচেয়ে বিশেষ দিন।”

Explore1কাতালুনিয়াতে জন্ম নেয়া এই মিডফিল্ডারকে দলে আনার সব প্রক্রিয়া খুব দ্রুত শেষ করে গত সোমবার খবরটি নিশ্চিত করে বার্সেলোনা। এখানে ৫ বছরের চুক্তিতে যোগ দিয়েছেন ভিদাল। তবে বার্সেলোনার উপর ফিফার নিষেধাজ্ঞা থাকায় আগামী জানুয়ারির আগে মাঠে নামা হবে না ২৫ বছর বয়সী এই খেলোয়াড়ের।

এক জন খেলোয়াড়ের জন্য এতটা সময় খেলতে না পারাটা স্বাভাবিকভাবেই অনেক কষ্টের। কিন্তু জন্ম শহরে কৈশোরের ক্লাবে ফিরে কোনো কষ্টই ভিদালের কাছে কষ্ট মনে হচ্ছে না। বরং বার্সেলোনায় যোগ দেওয়াটাকে ‘একটা স্বপ্ন পূরণ’ বলে উল্লেখ করেন তিনি।

“চার মাস খেলতে না পারাটা কোনো সমস্যা না। আমি এখানে দলের একটা অংশ হতে এসেছি। আগামী চার মাস আমি (রাইট ব্যাক) পজিশনের কিছু দিকের উপর কাজ করতে ব্যয় করব।”

ক্যারিয়ারে মূলত আক্রমণাত্মক মিডফিল্ডার হিসেবে পরিচিত হলেও সেভিয়াতে ফুল-ব্যাক হিসেবে আলো ছড়ান ভিদাল। আর সোমবারের সংবাদ সম্মেলনে তার কথাতে বোঝা যাচ্ছে, বার্সেলোনাতে হয়তো রক্ষণেই দেখা যাবে তাকে। চুক্তি অনুযায়ী ২০২০ সালের জুন পর্যন্ত বার্সেলোনায় খেলবেন ভিদাল। তবে গত শনিবার উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জিতে ট্রেবল পূরণ করা দলটিতে ক্যারিয়ারের বাকিটা সময়ও খেলে যাওয়ার ইচ্ছা তার।

লেখক সম্পর্কে

স্পোর্টসবাংলা ডেস্ক

স্পোর্টসবাংলা ডেস্ক

এই ধরনের আরো লেখা

০ মন্তব্য

এখনো কোনো মন্তব্য আসেনি!

এই মুহূর্তে এখানে কোনো মন্তব্য নেই, আপনি কি একটি মন্তব্য দেবেন?

মন্তব্য লিখুন

মন্তব্য লিখুন

আর্কাইভ

সেপ্টেম্বর ২০২০
সোমমঙ্গলবুধবৃহস্পতিশুক্রশনিরবি
« আগস্ট  
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০