Sports Bangla

বাংলাদেশকে হারিয়ে শিরোপা মালয়েশিয়ার

বাংলাদেশকে হারিয়ে শিরোপা মালয়েশিয়ার

বাংলাদেশকে হারিয়ে শিরোপা মালয়েশিয়ার
ফেব্রুয়ারি ০৮
১৪:১০ ২০১৫
royal-magnum_bigএকবারে শেষ মুহুর্তে বাংলাদেশের সর্বনাশটি করে দিলেন মালয়েশিয়ার ফরোয়ার্ড মোহাম্মদ ফাইজাত। কর্নার কিক থেকে ভেসে আসা বলে অসাধারণ এক হেডে বাংলাদেশের জালে বল জড়িয়ে দিলেন তিনি। ৯০+২ মিনিটে এসে ফাইজাতের এই গোলেই স্বপ্নভঙ্গ হলো বাংলাদেশের। ৩-২ গোলের ব্যবধানে হেরে বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপের শিরোটা আর জেতা হলো না মামুনুলদের। বাংলাদেশকে পরাজিত করে দ্বিতীয়বারের মতো বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপ ফুটবলের শিরোপা নিজেদের করে নেয়। বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপের প্রথম আসরেও শিরোপা জয়ের কৃতিত্ব দেখিয়েছিলো মালয়েশিয়া।
বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপের ফাইনাল খেলা দেখতে স্টেডিয়ামে ছুটে যান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। প্রায় ৩০ মিনিট খেলা উপভোগ করেন। খেলা শেষে পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে চ্যাম্পিয়ন মালয়েশিয়া দলের হাতে ট্রফি তুলে দেন। তার আগে বক্তব্যে প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমি চ্যাম্পিয়ন মালয়েশিয়াকে অভিনন্দন জানাই। সেইসাথে বাংলাদেশ ফুটবল দলকে অভিনন্দন জানান তিনি। তিনি বলেন, অনেকে মনে করেছিল বাংলাদেশ ফাইনালে খেলতে পারবে না। আবার দুই গোল খেয়ে দুই গোল শোধ করেছে। অত্যন্ত ভালো ফুটবল খেলেছে বাংলাদেশ দল। এবার চ্যাম্পিয়ন হতে না পারলেও পরবর্তীতে বাংলাদেশ আরো ভালো খেলে ভবিষ্যতে চ্যাম্পিয়ন হবে। তিনি আরো বলেন, সবচেয়ে আশার কথা ফুটবল প্রাণ ফিরে পেয়েছে। ফুটবল আবার গ্রামে-গঞ্জে ছড়িয়ে পড়বে।
Wedding Snaps (11)বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়াম খেলা শুরু হওয়ার আগেই দর্শকে কানায় কানায় পূর্ণ হয়ে যায়। ৩১ মিনিটে ফ্রি কিক থেকে অসাধারণ এক গোল করেন মালয়েশিয়ার অধিনায়ক নাজিরুল (১-০)। গোল শোধে মরিয়া হয়ে চেষ্টা করেও সফল হয়নি বাংলাদেশ। উল্টো ৪১ মিনিটে মালয়েশিয়া আরেকবার বল পাঠায় বাংলাদেশের জালে। প্রথম গোল হজমের পর এলোমেলো হয়ে পড়ে স্বাগতিকদের রক্ষণ। যে সুযোগে মালয়েশিয়ার পক্ষে দ্বিতীয় গোলটি করেন কুমারান। একক প্রচেষ্টায় ক্ষিপ্রগতিতে বল নিয়ে ছোট ডি’র ভেতরে ঢুকে বাংলাদেশের গোলরক্ষককে পরাস্ত করেন কুমারান (২-০)। বাংলাদেশের দুইজন ডিফেন্ডারও তাকে আটকে রাখতে পারেননি। শেষ পর্যন্ত ২-০ গোলে পিছিয়ে থেকেই বিরতিতে যায় মামুনুল-এমিলিরা।
FMC-Sports-logo-300x133ফাইনালে মালয়েশিয়ার বিপক্ষে প্রথমার্ধেই ২-০ গোলে পিছিয়ে পড়েছিল বাংলাদেশ। তবে বিরতির পরেই ম্যাচে সমতা ফিরিয়েছে মামুনুল বাহিনী। মাত্র ছয় মিনিটের ব্যবধানে দুই গোল পরিশোধ করে সমতা আনে ডি ক্রুইফের শিষ্যরা। ৪৮ মিনিটে বাংলাদেশের পক্ষে গোল করেন দেশসেরা স্ট্রাইকার জাহিদ হাসান এমিলি। রায়হান হাসানের লম্বা থ্রো থেকে নাসিরের হেড মালয়েশিয়ার গোলরক্ষক ফিরিয়ে দিয়েও শেষ রক্ষা করতে পারেননি। ফিরতি বলে জাহিদ হাসান এমিলি বল জালে পাঠান (১-২)। ৫৩ মিনিটে দলের পক্ষে দ্বিতীয় গোলটি করেন ডিফেন্ডার ইয়াসিন খান। মামুনুলের কর্নার থেকে ইয়াসিন খানের নেয়া চমৎকার হেড মালয়েশিয়ার জাল স্পর্শ করে (২-২)। সেই সাথে উল্লাসে ফেটে পড়ে খেলা দেখতে আসা ৪৫ হাজার দর্শক।
এরপর বলতে গেলে দ্বিতীয়ার্ধের প্রায় পুরো সময়ই বাংলাদেশ আধিপত্য বিস্তার করে খেলতে থাকে। কিন্তু অতিরিক্ত সময়ে মালয়েশিয়ার ফাইজাতের গোলে কপাল পুড়ে স্বাগতিকদের। এ সময় কর্নার থেকে ফাইজাত দর্শনীয় হেডে বাংলাদেশের গোলরক্ষককে পরাস্ত করেন। সেই সাথে স্বাগতিকদের ৩-২ গোলে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন হয় মালয়েশিয়া।
ম্যাচসেরা হন ফাইনাল ম্যাচের জয়সূচক গোল করা মালয়েশিয়ার ১৭নং জার্সিধারী ফাইজাত। টুর্নামেন্ট সেরার পুরস্কার পেয়েছেন বাংলাদেশের ৬নং জার্সিধারী জামাল ভুইয়া।
Ambia 1

লেখক সম্পর্কে

স্পোর্টসবাংলা ডেস্ক

স্পোর্টসবাংলা ডেস্ক

এই ধরনের আরো লেখা

০ মন্তব্য

এখনো কোনো মন্তব্য আসেনি!

এই মুহূর্তে এখানে কোনো মন্তব্য নেই, আপনি কি একটি মন্তব্য দেবেন?

মন্তব্য লিখুন

মন্তব্য লিখুন

আর্কাইভ

সেপ্টেম্বর ২০২০
সোমমঙ্গলবুধবৃহস্পতিশুক্রশনিরবি
« আগস্ট  
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০